ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১৫ ১৪৩০

মাত্র ৩ সেকেন্ডের ভিডিও তৈরি করে সপ্তাহে আয় ১৫৮ কোটি টাকা! কোন জাদুতে?

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৭:০০, ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪  

মাত্র ৩ সেকেন্ডের ভিডিও তৈরি করে সপ্তাহে আয় ১৫৮ কোটি টাকা! কোন জাদুতে?

মাত্র ৩ সেকেন্ডের ভিডিও তৈরি করে সপ্তাহে আয় ১৫৮ কোটি টাকা! কোন জাদুতে?

বর্তমান সময়কে বলা হয় সোশ্যাল মিডিয়ার যুগ। বিশ্বজুড়ে লাখ লাখ মানুষ প্রতিদিন ভিডিও কনটেন্ট তৈরি করছেন। ইউটিউব, ইনস্টাগ্রাম এবং ফেসবুকের মতো সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মগুলোতে সেই সব ভিডিও পোস্ট করেন, কিছু ভিউ এবং ফলোয়ার পাওয়ার আশায়। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিও কনটেন্ট তৈরি বহু মানুষ আয়ের প্রধান উৎস হয়েও উঠেছে। তবে এত মানুষ যারা কনটেন্ট তৈরি করছেন, তারা কি সকলেই সফল হন? না, সফল হন মুষ্টিমেয় কয়েকজনই।

সফল কনটেন্ট ক্রিয়টরদের একজন হলেন জেন জিয়াং জিয়াং নামের এক চীনা তরুণী। দ্রুত সময়ের মধ্যে পণ্যের রিভিউ দেয়ার ক্ষেত্রে ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন তিনি। শুনলে অবাক লাগতে পারে, তিনি তৈরি করেন মাত্র ৩ সেকেন্ডের ভিডিও! আর এভাবেই প্রতি সপ্তাহে তার আয় ১৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় ১৫৮ কোটি টাকা।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়, সোশ্যাল মিডিয়ার ইনফ্লুয়েন্সারদের ভিড়ে নিজস্বতা তৈরি করেছেন ঝেং জিয়াং জিয়াং।

সারা বিশ্বে যে সকল সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম চলে, চীনে তা চলে না। চীনের নিজস্ব সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম রয়েছে। এই রকমই একটি হল দউইন। এটাকে টিকটকের চীনা সংস্করণ বলা যায়। এই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝেং-এর ৫০ লাখেরও বেশি ফলোয়ার রয়েছে। আর এই বিপুল সংখ্যক ফলোয়ারকে মাত্র কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে মোহিত করেন ঝেং। তার এই বিস্ময়কর ক্ষমতার জোরেই তিনি এই অবিশ্বাস্য রোজগারে পৌঁছেছেন।

প্রসঙ্গত, অধিকাংশ সোশ্যাল মিডিয়া ইনফ্লুয়েন্সাররা, অনেক সময় নিয়ে তাদের প্রচার করা পণ্যগুলোর প্রতিটির বিশদ বর্ণনা দিয়ে থাকেন। নিজেদের কনটেন্টকে সম্বৃদ্ধ করতে অনেক কৌশল অবলম্বন করেন। কিন্তু ঝেং হেঁটেছেন সম্পূর্ণ উল্টোপথে।

তিনি তার প্রচার করা পণ্যগুলো দেখান শুধুমাত্র তিন সেকেন্ডের জন্য। ঝেং-এর একজন সহকরী আছেন। লাইভ স্ট্রিম চলাকালীন, তিনি একটি কমলা বাক্স থেকে বিভিন্ন পণ্য এক এক করে ঝেং-এর হাতে হাতে তুলে দেন। তিনি সময় নেন বলতে গেলে কয়েক মিলিসেকেন্ড। আর তারপর ঝেং সেই পণ্যগুলো ৩ সেকেন্ডের জন্য ক্যামেরায় সামনে দেখান।

ওই তিন সেকেন্ডে পণ্যটির দাম, তার ব্যবহার ইত্যাদি জানিয়ে দেন। অতি অল্প সময়ে দর্শকদের মনোযোগ ধরে রাখার ক্ষমতার জোরেই ঝেং সোশ্যাল মিডিয়া ইনফ্লুয়েন্সারদের জগতে আলাদা জায়গা করে নিতে পেরেছেন।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়