ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||  ফাল্গুন ১৫ ১৪৩০

কবিতা পর্ব : ৩১ মে ১৯৬২

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:২৩, ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪  

কবিতা পর্ব : ৩১ মে ১৯৬২

কবিতা পর্ব : ৩১ মে ১৯৬২

এই দেখো আমার ভার বহন
করতে করতে তুমি এখন ক্লান্ত,

আমি নিজেও ক্লান্ত এখন,
আমার চোখ—আমার ছায়া সবই ক্লান্ত,
আমার শব্দেরা যেন আগুনের মতো উত্তপ্ত
আমার সমস্ত অঙ্গ একসঙ্গে মৃত্যুর গান গাইছে—
আমি এখন খুব ক্লান্ত, সদ্য ভূমিষ্ঠ হওয়া শিশুরা
যেমন কাঁদতে কাঁদতে হয়ে যায় পরিশ্রান্ত।

তোমার মনে পড়ে?
আমাদের কথা ছিল কূপ হওয়ার,
অথচ, আমরা হয়েছি আগুন।

একদিন হঠাৎ সময় ফুরাবে
সকাল হবে না তখন আর;
আসবে না বিকেল কিংবা সন্ধ্যা দিনভর
নাকে লাগবে আগরবাতির ঘ্রাণ,

সেদিন তুমি শুনতে পাবে আমার পায়ের ছাপা গান, নিভে যাবে তোমার বুকে বেড়ে ওঠা শিশির ভেজা প্রাণ।

একদিন তুমি শুনবে আমার পদচারণ অথবা তার ওজন,
তোমার অন্তরে আমার পায়ের ছাপ নড়ে তোমার সত্তার ভেতরে আমি অনেক অনেক দূরে,

আমি জানি এই ভার পৃথিবীর সব সবচেয়ে দুঃখকর, নিঃশব্দ—দাবাড়ুর চিৎকার হাহাকার।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়