ঢাকা, বুধবার   ১৭ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ৪ ১৪৩১

জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মতো উপজেলা নির্বাচনও সুষ্ঠু হবে : ইসি রাশেদা

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৭:১১, ২ এপ্রিল ২০২৪  

নির্বাচন কমিশনার রাশেদা সুলতানা

নির্বাচন কমিশনার রাশেদা সুলতানা

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মতো এবারের উপজেলা নির্বাচনও অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও উৎসবমুখর পরিবেশে অনুষ্ঠিত করা নির্বাচন কমিশনের লক্ষ্য বলে মন্তব্য করেছেন নির্বাচন কমিশনার রাশেদা সুলতানা। 

মঙ্গলবার দুপুরে রাজশাহী শিল্পকলা একাডেমিতে ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভায় তিনি এ কথা বলেন।

রাশেদা সুলতানা বলেন, আমাদের ম্যাসেজ একটাই অবাধ, সুষ্ঠু নির্বাচন। যেখানে ভোটাররা আসবেন এবং তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। আর এই ভোটের অধিকার নিশ্চিত করা আমাদের সবারই দায়িত্ব। এবারের নির্বাচনে নিয়ম-কানুনে বেশকিছু পরিবর্তন এসেছে জানিয়ে রাশেদা সুলতানা বলেন, আসন্ন ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থীদের অনলাইনে মনোনয়নপত্র দাখিল বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। অনলাইন ব্যতীত কোনোভাবেই মনোনয়নপত্র দাখিল করা যাবে না। এসময় কারিগরি যেকোনো সমস্যার জন্য মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিনের অপেক্ষা না করে আগেভাগেই অনলাইনে মনোনয়নপত্র দাখিলের জন্য সংশ্লিষ্ট প্রার্থীদের অনুরোধ জানান নির্বাচন কমিশনার।

তিনি আরও বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থীর জন্য আড়াইশো জনের যে স্বাক্ষর লাগতো ভোটারের গোপনীয়তা রক্ষার স্বার্থে আমরা তা তুলে ফেলেছি। তিনি বলেন, ইভিএম দিয়ে আমরা সবগুলো নির্বাচন করতে পারলে খুশি হতাম। ইভিএম নিয়ে সেই সক্ষমতা নাই। এখন যে ইভিএমগুলো ভালো, কাজ করতে সক্ষম। সেগুলো দিয়ে নির্বাচন করতে চেয়েছি। রাজশাহী বিভাগের সিরাজগঞ্জ ও পাবনা জেলায় ইভিএম মেশিনের মাধ্যমে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এই জেলাগুলোর সব ধাপের নির্বাচনের ভোটগ্রহণ ইভিএমে হবে। আর বিভাগের বাকি জেলাগুলোর সব ধাপের নির্বাচনের ভোটগ্রহণ ব্যালট পেপারে অনুষ্ঠিত হবে।

নির্বাচন কমিশনার রাশেদা সুলতানা বলেন, জাতীয় নির্বাচনে যে স্ট্যান্ডার্ড তৈরি হয়েছে, আমরা সেটা থেকে কোন ক্রমেই নিচে নামতে চাই না। সেখান থেকে আরও উপরে উঠে যেতে চাই। আমাদের দেশে সব সময়ের জন্য একটা নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি হয়, বিরাজ করে, সেটা আমাদের কমিশন চাই। সেটা চাইতে হলে সবার সমন্বয়ে আমাদের কাজ করতে হবে। আমাদের দুইটা ধাপের নির্বাচন একবারে কাছাকাছি সময়ের মধ্যে হবে। প্রথম ধাপের নির্বাচন ৮ মে, দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচন ২১ মে। 

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রাজশাহী বিভাগীয় কমিশনার দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ুন কবীর। এসময় আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা দেলোয়ার হোসেন সহ রাজশাহী বিভাগের সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়